আজ, বুধবার | ২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ



সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ আলোচিত হচ্ছে চট্টগ্রামের তরুণ রাজনীতিবিদ ও মানবিক ব্যক্তিত্ব ফারাজ করিম চৌধুরীর বিয়ের বিষয়টি। গত কয়েকদিন ধরে বিয়ের গুঞ্জন চললেও এরইমধ্যে সব ধোঁয়াশা কাটতে শুরু করেছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে তাদের একটি পারিবারিক অনুষ্ঠানের কয়েকটি ছবি।

 

 

 

 

 

 

 

 

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ আলোচিত হচ্ছে চট্টগ্রামের তরুণ রাজনীতিবিদ ও মানবিক ব্যক্তিত্ব ফারাজ করিম চৌধুরীর বিয়ের বিষয়টি। গত কয়েকদিন ধরে বিয়ের গুঞ্জন চললেও এরইমধ্যে সব ধোঁয়াশা কাটতে শুরু করেছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে তাদের একটি পারিবারিক অনুষ্ঠানের কয়েকটি ছবি।

ফারাজ করিমের পারিবারিক সূত্রে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, রংপুরের একটি সাধারণ (শিক্ষিত) পরিবারের তরুণীকেই শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর গুলশানের একটি মসজিদে ইসলামিক নিয়ম অনুযায়ী আকদের মাধ্যমে বিয়ে করতে যাচ্ছেন তিনি।

এছাড়া বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে একটি সূত্র  জানায়, ১৯৯৮ সালের ২৬ ডিসেম্বর জন্মগ্রহণ করা সেই তরুণীর নাম আফিফা আলম। রংপুরের মিঠাপুকুরে শৈশব থেকে বেড়ে উঠা এই তরুণী ঢাকায় এসে ও-লেভেল এবং এ-লেভেল অধ্যয়ন শেষ করে বর্তমানে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ে আর্কিটেকচার বিষয়ে পড়ালেখা করছেন।

ফারাজ করিম চৌধুরীর বন্ধুদের সঙ্গে পারিবারিক অনুষ্ঠানে আফিফা আলম

এদিকে ১৯৯২ সালে চট্টগ্রামের রাউজানে জন্মগ্রহণ করা ফারাজ করিম চৌধুরীর বাবা হচ্ছেন টানা পাঁচবারের সংসদ সদস্য ও রেলপথ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এ. বি. এম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি। তার দাদা ছিলেন সাবেক পূর্ব পাকিস্তান প্রাদেশিক পরিষদের বিরোধী দলীয় নেতা (লিডার অফ দা অপজিশন) ও পূর্ব পাকিস্তান প্রাদেশিক আইন পরিষদের চেয়ারম্যান এ. কে. এম. ফজলুল কবির চৌধুরী।

 

ছোটবেলা থেকে মানুষের বিপদে পাশে দাঁড়ানো এই তরুণকে ঘিরে দেশবাসীর কৌতুহলের শেষ নেই। ইতোপূর্বে বিয়ে প্রসঙ্গে ফারাজ করিম চৌধুরী বিভিন্ন মিডিয়ায় ঘোষণা দিয়েছিলেন, সাদামাটাভাবে মসজিদে শরীয়াহ অনুযায়ী আকদের মাধ্যমে বিয়ের কার্যক্রম সম্পন্ন করবেন।

সেই সঙ্গে সব শ্রেণি-পেশার সর্বস্তরের মানুষের জন্য আগামী ১ মার্চ ২০২৪, চট্টগ্রামের রাউজানের গহিরাস্থ বাড়িতে বিয়ে উপলক্ষে মেজবানের আয়োজন করতে যাচ্ছেন তিনি।