আজ, মঙ্গলবার | ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ



চকরিয়ায় আদালতের চলমান মামলায় বৃদ্ধাঙ্গুলী প্রদর্শন করে জমি জবর দখলে ভূমিদস্যুচক্র

চকরিয়া প্রতিনিধিঃ
চকরিয়ার লক্ষ্যারচরে আদালতের বিচারাধীন মামলার প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলী প্রদর্শন করে পাকা ওয়াল দিয়ে জমি জবর দখল কাজ চালিয়ে যাচ্ছে প্রভাবশালী ভূমিদস্যুচক্র। উপজেলার লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের রুস্তুম আলী চৌধুরী পাড়া গ্রামে ১৭জুলাই’২৩ইং সকাল ৮ ঘটিকা হতে অদ্যাবধি ঘটেছে এ জবর দখলের ঘটনা।

লনিয়ে কৈয়ারবিল ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের দরগাহপাড়া ইসলামনগর গ্রামের বাসিন্দা ফরিদুল আলমের পুত্র ছরওয়ার আলম বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
এতে অভিযুক্ত করা হয়েছে;লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের রুস্তুম আলী চৌধুরী পাড়া গ্রামের মৃত রফিক আহমদ চৌধুরীর পুত্র আনিছুর রহমান চৌধুরী, আমজাদ হোছেন হুজ্জাদ ও মকছুদুল হকের পুত্র সজিবসহ অজ্ঞাতনামা আরো কয়েকজনকে।

বাদী ছরওয়ার আলম অভিযোগে জানান, আমার মা ছেনোয়ারা বেগম ও নানী রেহেনা খাতুন এর বি,এস রেকর্ডীয় ও রায়তি স্বত্বীয় লক্ষ্যারচর মৌজার বি,এস খতিয়ান নং- ১০৮, বি,এস দাগ নং- ২১১২, ২১১৩ এর ১৩.৪১ শতক জমি রয়েছে। সেই মতে আমরা ওয়ারিশগণ শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোগ-দখলে রয়েছি। অভিযোগ উঠেছে, বর্তমানে জমির মূল্য বৃদ্ধি পাওয়ায় বিবাদীগণ দূলোর্ভের বশবর্তী হয়ে ভূমিদস্যু নীতি অবলম্বনে তফসিলোক্ত জমি স্থায়ী জবর-দখলের পায়াতারা শুরু করলে, বিজ্ঞ যুগ্ম জেলা জজ দ্বিতীয় আদালত, কক্সবাজারে অপর ১৭২/২২ইং মামলা দায়ের করেন। যা আদালতে চলমান ও বিচারাধীন রয়েছে। কিন্তু বিবাদীগণ আদালতের চলমান মামলাকে বৃদ্ধাঙ্গুলী দেখিয়ে গত ১৭জুলাই’২৩ইং সকাল ৮ ঘটিকা হতে বিবাদীগণ তফসিলোক্ত জমিতে অনধিকার প্রবেশ করতঃ ইট, বালি, সিমেন্ট ইত্যাদি আনিয়া স্তুপ করে স্থায়ী জবর-দখলের কার্যক্রম শুরু করে। বে-আইনী কর্মকান্ডে বাঁধা দিলে, বিবাদীগণ অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে হুমকি প্রদর্শন করে। ফলে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ায় যেকোন মুহুর্তে পক্ষদ্বয়ের মধ্যে রক্তক্ষয়ী ঘটনা সহ খুনের ঘটনা হওয়ার আশংকা দেখা দিয়েছে। এনিয়ে ভুক্তভোগি পরিবার সম্পদের রক্ষা ও নিরাপত্তা চেয়ে থানায় লিখিত অভিযোগটি দায়ের করেন।